দেখি, খেলা হয় কি না!

প্রকাশিত: ৬:০২ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ৬, ২০২৩

দেখি, খেলা হয় কি না!

ডেস্ক রিপোর্ট: আলোচিত ইউটিউবার হিরো আলম আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরকে তার সঙ্গে বগুড়া-৪ আসনে ভোটে প্রতিদ্বন্দ্বিতার চ্যালেঞ্জ জানিয়েছেন।

তিনি (হিরো) বলেন, ওবায়দুল কাদের স্যার বলেন, হিরো আলম জিরো হয়ে গেছে। তবে হিরো আলম কখনো জিরো হয় না। যারা হিরোকে জিরো বানাতে চায় তারাই জিরো হয়ে গেছে।

 

হিরো আলম আরও বলেন, মন্ত্রী আমাকে তুচ্ছ তাচ্ছিল্য করে এমন কথা বলেছেন। তবে একজন মন্ত্রী নাগরিকদের এভাবে কথা বলতে পারেন না। তিনি কথায় কথায় বলেন, আসুন খেলা হবে। শক্তিশালী দলের সঙ্গে খেলতে চান। তাই বলি অন্য কারও সঙ্গে নয়; শুধু আমার সঙ্গে বগুড়া-৪ আসনে নির্বাচন করুন, সিসি ক্যামেরা দিন দেখুন কে জেতে? সুষ্ঠু ভোট দিয়ে দেখুন তো দেখি, খেলা হয় কি না?’

 

বগুড়া-৪ (কাহালু-নন্দীগ্রাম) আসনে অনুষ্ঠিত উপনির্বাচনের ভোট পুনরায় গণনার দাবিতে রোববার রিটার্নিং অফিসার জেলা প্রশাসক সাইফুল ইসলামকে লিখিত আবেদন দেওয়ার পর সাংবাদিকদের কাছে পরাজিত স্বতন্ত্র প্রার্থী হিরো আলম এ কথা বলেন।

 

এ প্রসঙ্গে বিকালে জেলা প্রশাসক রিটার্নিং অফিসার বলেন, ইভিএমে গ্রহণ করা ভোট পুনরায় গণনার কোনো সুযোগ নেই। তবে হিরো আলমকে মেশিনের ট্রেসিং পেপার ও অন্যান্য কাগজপত্র সরবরাহ করা হয়েছে।

 

আশরাফুল ইসলাম আলম ওরফে হিরো আলম আরও বলেন, আমার নির্বাচনি ফলাফল তারা সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করেননি। এ নিয়ে আমার সন্দেহ ছিল। তাই সব ভোটকেন্দ্রের ফলাফল আমি জোগাড় করেছি। কিছু কেন্দ্রে আমিসহ প্রায় সব প্রার্থী অস্বাভাবিক ভোট পেয়েছেন। ওই কেন্দ্রগুলো উল্লেখ করে দিয়ে জেলা প্রশাসক স্যারের কাছে ভোট পুনরায় গণনার আবেদন দিয়েছি। এখানে দাবি প্রত্যাখ্যান করা হলে নির্বাচন কমিশনে যাবেন, সেখানে না হলে হাইকোর্টে রিট করবেন।

 

বিএনপি বা অন্য কোনো দলের পক্ষে কাজ করছেন কিনা এমন প্রশ্নের উত্তরে হিরো আলম বলেন, বিএনপি আমার পক্ষে কাজ করলে তারা ভোটের দিন মাঠে থাকত। শুধু বিএনপি নেতা মির্জা ফখরুল ইসলাম স্যার নয়; সারা বিশ্ব ও দেশের মানুষ আমার পক্ষে কথা বলছেন।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ